• অক্টোবর ২১, ২০২১

কেন তর্ক বাংলা?

তর্ক বাংলা বাংলা ভাষার শিল্প, সাহিত্য ও সংস্কৃতি বিষয়ক পূর্ণাঙ্গ অনলাইন পত্রিকা। অনলাইনকে কেন্দ্র করে তর্ক বাংলা একটি ছাপা পত্রিকা প্রকাশ করবে। পত্রিকার নাম তর্ক তর্ক মূলত চিন্তা চর্চার পত্রিকা। বাংলাদেশে বসবাসকারী একদল কবি, সাহিত্যিক ও শিল্পী তর্ক বাংলার সঙ্গে যুক্ত। আমরা প্রথাগত সম্পাদনার বিপরীতে ভিন্ন পদ্ধতির মীমাংসারূপ বিচার করি। আমাদের সম্পাদনার পদ্ধতি নৈর্ব্যক্তিক। ব্যক্তি নয়, নতুন চিন্তা, নতুন প্রশ্ন, নতুন রূপতত্ত্ব, ভাষার কারুকাজকে আমরা উসকে দেই। সাহিত্য, সংস্কৃতি আর শিল্পের প্রথা থেকে নিরীক্ষা সকল মাধ্যমই আমাদের চিন্তার বিষয়-আশয়। তবে তর্ক বাংলা একাটি অলাভজনক প্রতিষ্ঠান।

তর্ক বাংলা শব্দ। আদি রূপ সংস্কৃত। বাংলায় তর্ক শব্দের ভিন্ন ভিন্ন অর্থ। আদিতে তর্কশাস্ত্র এতদ অঞ্চলের দর্শনের অপররূপ বলেই বিবেচিত। খোদ যুক্তিশাস্ত্র অর্থে ন্যায় মতবাদবিশেষ। মানে তাতে জারি থাকত কখনো আকাঙ্ক্ষা, কখনো সদর্থক চিন্তা, আর কখনো সংশয়। আধুনিক যুগে তর্ক শব্দ বিতর্ক অর্থে ধ্বনিত হয়। আমরা সাহিত্য দর্শনের বেলায় তর্ক ভাবের অর্থ নিলাম মীমাংসার রূপ বিচার। মানে আকাঙ্ক্ষা নিছক আশা নয়আকাঙ্ক্ষা থেকে বাসনা, সংশয় থেকে যুক্তির মুক্তি। আর যথাযথ পর্যালোচনায় থাকছে সুন্দর আর নিরপেক্ষ সম্পাদনা রীতি।

এমন সময় তর্ক বাংলা প্রকাশ পাচ্ছে, যখন গোটা সাংস্কৃতিক পরিমণ্ডল স্থবির ও সংকটময়। মহামারি মানব জীবনকে গভীর অনস্তিত্বের দিকে ঠেলে দিয়েছে। এমন অধরা সময়ে আমরা যারা বেঁচে আছি, তারা বস্তুত নতুন মানুষ। ইতিহাস বলে, মহামারি উত্তর মানুষ সময় আর সংস্কৃতিকে বদলে দিয়েছিল বুদ্ধিবৃত্তিক তৎপরতায়। এমন তৎপরতা খুব সহজ নয়, কঠিন। তবুও আমরা নতুন কিছুর স্বপ্ন দেখতে চাই। সংকট আর অসারতা কাটাতে নতুন চিন্তার সন্ধান করতে চাই। আমরা সাহিত্য আর শিল্প চিন্তার সব সম্ভাবনাকে টিকিয়ে রাখতে চাই। আমাদের আশা, আপনারা সার্বিকভাবে তর্ক বাংলার পাশে থাকবেন।